কারা অধিদপ্তরে দুর্নীতির বিষয়ে ১৫ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করল দুদক

0
75
এফআইআর টিভি অনলাইন ডেস্কঃ কারা অধিদপ্তরে বিভিন্ন অনিয়ম-দুর্নীতির অভিযোগে এআইজি প্রিজন্স মাইনুদ্দিন ভূঁইয়া ও মৌলভীবাজার কারাগারের জেলার আবু মুসাকে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

মঙ্গলবার (৮ মার্চ) দুদকের প্রধান কার্যালয়ে সকাল ১০টা থেকে সংস্থাটির সহকারী পরিচালক মো. সাইদুজ্জামানের নেতৃত্বে একটি টিম তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে। বেলা সাড়ে ১১টায় জিজ্ঞাসাবাদ শেষ হয়।

জিজ্ঞাসাবাদ শেষে সাংবাদিকদের এড়িয়ে যান দুদক কর্মকর্তারা। তবে জানা গেছে, জিজ্ঞাসাবাদের সময় অভিযোগের বিষয়ে বেশকিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন ওই দুই কর্মকর্তা। দুদক টিম তাদের দেওয়া তথ্য যাচাই-বাছাই করে আইনি ব্যবস্থা নেবে।

এর আগে কারা অধিদপ্তরের বিভিন্ন পদে জনবল নিয়োগ ও অবৈধ ক্যান্টিন বাণিজ্যসহ বিভিন্ন দুর্নীতির অভিযোগ অনুসন্ধানে রোববার (৬ মার্চ) খুলনা কেন্দ্রীয় কারাগারের ডিআইজি প্রিজন্স ছগির মিয়া, হবিগঞ্জ জেলা কারাগারের জেল সুপার গিয়াস উদ্দিন মোল্লা ও জামালপুর জেলা কারাগারের জেল সুপার মোখলেছুর রহমানকে জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক।

সোমবার (৭ মার্চ) যশোর কেন্দ্রীয় কারাগারের জেলার আবু তালেব, বাগেরহাট জেলা কারাগারের জেলার মহিউদ্দিন হায়দার ও চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা কারাগারের জেল সুপার শফিকুল ইসলামকে জিজ্ঞাসাবাদ করে প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তারা।

১৭ জানুয়ারি ও ১৫ ফেব্রুয়ারি একই অভিযোগ অনুসন্ধানে ঢাকা, ময়মনসিংহ ও বরিশাল কারাগারের সাত ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করে দুদক। সব মিলিয়ে কারা অধিদপ্তরের দুর্নীতি অনুসন্ধানে এ পর্যন্ত ১৫ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করলো দুদক।

২০২০ সালের শুরুতে অভিযোগটি অনুসন্ধান করে দুই সদস্যের টিম গঠন করে দুদক। টিমের অন্য সদস্য হলেন সহকারী পরিচালক মো. আবুল কালাম আজাদ। আর তদারকি কর্মকর্তা হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন সংস্থাটির পরিচালক সৈয়দ ইকবাল হোসেন।

অভিযোগের বিষয়ে বলা হয়, ক্ষমতার অপব্যবহার ও ঘুষ নিয়ে কারা অধিদপ্তরের বিভিন্ন পদে জনবল নিয়োগ, অর্থের বিনিময়ে বন্দিদের অবৈধ সুবিধা, অর্থ লেনদেন এবং অবৈধ ক্যান্টিন বাণিজ্যসহ বিভিন্ন অনিয়ম ও দুর্নীতির মাধ্যমে সরকারি টাকা আত্মসাৎ করে বৈধ আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগ রয়েছে তাদের বিরুদ্ধে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here