বানিয়াচং থেকে চুরি হওয়া পাইভেটকার দু’টি বি-বাড়িয়া থেকে উদ্ধার ! আটক দুই চোর

0
25

আকিকুর রহমান রুমন,বিশেষ প্রতিনিধিঃ হবিগঞ্জের বানিয়াচং থেকে চুরি হওয়া লাইটেস দু’টি বি-বাড়িয়া জেলার কসবা থানা থেকে উদ্ধারসহ দুই চোরকে আটক করে বানিয়াচং থানায় নিয়ে আসে একদল পুলিশ। আটককৃত দুই চোর হলো,হবিগঞ্জ সদর উপজেলার বড় বহুলা গ্রামের ইউনুছ মিয়ার কুখ্যাত গাড়ি চোর রিপন(২৫)বানিয়াচং উপজেলা সদরের নন্দীপাড়া বাদাওরি মহল্লার মৃত আঞ্জব আলীর পুত্র কুখ্যাত গাড়ি চোর হারুন মিয়া(২৬)।

থানা পুলিশ ও মালিক সূত্রে জানাযায়,২২নভেম্বর দিবাগত গভীর রাতের কোন এক সময়ে ২৩নভেম্বরে বানিয়াচং উপজেলার সদরের ৪ নং দক্ষিন পশ্চিম ইউপির যাত্রাপাশা গ্রামের-নয়া বাড়ির- শিবলু মিয়ার গাড়ির গ্যারেজ থেকে শিবলু মিয়ার একটি ও বড়বাজারের নাগেরহানা মহল্লার মহিবুর মিয়ার একটি গাড়িসহ মোট দু’টি লাইটেস চোরি করে নিয়ে যায় চোরের দল।পরে এই চুরির বিষয়টি বানিয়াচং থানাকে অবগত করেন মালিক পক্ষ। তাৎক্ষণিক এই বিষয়টিকে আমলে নিয়ে বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি)এমরান হোসেন এই বার্তাটি বাংলাদেশের সমগ্র থানা ও গোয়েন্দা সংস্থাসহ আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর মধ্যে প্রেরন করে গাড়ি গুলো উদ্ধারের চেষ্টা চালান।

পরে ২৩নভেম্বর দিনের বেলায় বি-বাড়িয়া জেলার কসবা থানা পুলিশ এই গাড়ি দু’টিসহ দুই চোরকে আটক করে বানিয়াচং থানা পুলিশকে এই বিষয়টি অবগত করেন। সঙ্গে সঙ্গে ওসি এমরান হুসেনের নেতৃত্বে এসআই রাকিবসহ একদল পুলিশ ও গাড়ির মালিক পক্ষের লোকজনসহ বানিয়াচং থানা থেকে সন্ধ্যার দিকে কসবা থানার উদ্যেশে রওয়ানা হন।

সেখান থেকে গাড়ি দুটি ও দুই চোরকে নিয়ে বানিয়াচং থানার উদ্যেশে রওয়ানা দিয়ে রাত ৭টার দিকে থানায় এসে পৌঁছান তারা। এব্যাপারে বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি)এমরান হুসেনের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি এসবের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান,প্রাথমিক ভাবে ওদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে এবং বেশকিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্যও পেয়েছেন। এই চক্রের অন্যান্যদের গ্রেফতার করতে তাদের অভিযান চলবে। তবে এখনো কোন মামলা দায়ের হয়নি এবং আজ ২৫নভেম্বর মামলা দিয়ে এবং রিমান্ড চেয়ে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরন করা হবে বলেও জানান ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here