১০নং ছাতিয়াইন ইউপি নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দুবাই প্রবাসী মোঃ জিয়া

0
142

আউশ মিয়া, স্টাফ রির্পেটারঃ হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার ১০নং ছাতিয়াইন ইউনিয়নের গর্বিত কৃতি সন্তান মোঃ জিয়াউর রহমান জিয়ার প্রশংসায় ইউনিয়নবাসী। অত্র ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে সংযোক্ত আরব আমিরাত বিএনপির সহ সভাপতি মোঃ জিয়া এখন সর্বত্র আলোচনায়।

তিনি এবার ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে লড়বেন বলে জানিয়েছেন। ইতিমধ্যে কয়েকদিনের জন্য জিয়ার অনুপস্থিতিতে ওনার বড় ভাই মোঃ এনামূল হক এনাম ও বন্ধু এম,এ আবুল কালাম ও তার কর্মী সমর্থক বাড়ি বাড়ি গিয়ে গনসংযোগ চালিয়ে যাচ্ছেন। এলাকাবাসীর সাথে কুশল বিনিময় করছেন। সাধারন মানুষও ঝুঁকছেন তার দিকে। এসব কারনে চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসাবে প্রশংসায় ভাসছেন মোঃ জিয়াউর রহমান জিয়া।

ইউপি নির্বাচন আরো ৩/৪ মাস বাকি রয়েছে । এলাকার সম্ভাব্য প্রার্থীরা চষে বেড়াচ্ছেন মাঠে ময়দান। ঘুরে বেড়াচ্ছেন এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্তে। গ্রাম থেকে গ্রামন্তরে। নির্বাচনী হাওয়া বইছে মাঠে ময়দানে। তবে বসে নাই কোন প্রার্থী। আপন গতিতে চালিয়ে যাচ্ছে নির্বাচনের প্রচারণা। সময় যতই ঘনিয়ে আসছে, ততই বেড়ে যাচ্ছে নির্বাচনী আমেজ। চা’র গরমের সাথে গরম হচ্ছে নির্বাচনের মাঠ। আলোচনা সমালোচনা চলছে মানুষের মুখে মুখে। ইউপির ছাতিয়াইন, রামেশ্বর, এক্তিয়ারপুর, মনিপুর ভাঙাব্রীজ মোড় সহ গ্রাম-গঞ্জে বিভিন্ন চা’র দোকানে এখন আলোচনা চলছে শুধু নির্বাচন নিয়ে। কে হতে পারে ক্ষমতার চেয়ারের মালিক।

সরজমিনের গিয়ে জানা যায় , মোঃ জিয়াউর রহমান জিয়া এই ইউনিয়নেরি ০৯নং ওয়ার্ডের স্হায়ী বাসিন্দা মরহুম হাজী আঃ আওয়াল জিতু সরদার সাহেবের সুযোগ্য সন্তান। তিনি অত্র ইউনিয়ন বাসীর কাছ থেকে দোয়া চেয়েছেন। যার আর্দশ পিতার মতো ও এলাকাবাসীর ন্যায় বিচারের পাশাপাশি মানুষের সেবা করা,মানুষের কষ্ট কে ভাগ করে নেওয়া।

জিয়া এবার প্রথম ভোট যুদ্ধে কোমর বেঁধে নেমেছেন। যার কারনে জনগণের সাড়াও পাচ্ছেন। তবে এবার জনগনের ইচ্ছায় তিনি নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার ইচ্ছা পোষণ করেছেন। সবকিছু মিলিয়ে প্রথম বারই চমক দেখাতে পারেন বলে সকলের আশা।

ভোটারেরা জানান, ভোট আসলে প্রার্থীরা নানা প্রতিশ্রুতি দেয়। কিন্তু ভোট শেষ হলে ভুলে যায় তাদের দেয়া সেসব প্রতিশ্রুতি। দেখায় মেলেনা জনপ্রতিনিধিদের। সে ক্ষেত্রে মোঃ জিয়াউর রহমান জিয়াকে বিভিন্ন কার্যক্রমে দেখতে ব্যতিক্রম। আমরা ওনাকে ভোট দিয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করব।

ভোটাররা আরো জানায়, আমাদের অতীতে এবং বর্তমানে দুবাই প্রবাসী মোঃ জিয়াউর রহমান জিয়া যদিও বাহির রাষ্ট্রে কর্মরত রয়েছেন তবে আমরা যে কোন আপদ-বিপদে ডাক দিলে ওনাকে আমরা পাশে পেয়েছি। আমরা আগামী নির্বাচনে তাকে ভোট দিয়ে চেয়ারম্যান নির্বাচিত করব।

এই ব্যাপারে মোঃ জিয়াউর রহমান জিয়া জানান,আমি দেশ ও জনগণের সেবা এবং এলাকার উন্নয়ের জন্য প্রথম বারের মতো ভোট করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমার পিতার মতো মানুষের সেবা ও ন্যায় বিচারের পাশাপাশি ইউনিয়ন পরিষদ থেকে সেবা বঞ্চিত মানুষের সেবা করে বাকি জীবন টা কাটাতে চাই। আমি সহ আমার পরিবার কর্মী সমর্থক সবাই মানুষের দ্ধারে দ্বারে যাচ্ছি। জনগনের সাড়াও পাচ্ছি। জনগণ চাইলে তাদের খেদমত করার সুযোগ পাব। আমি চাই জনগণের খেদমত করতে। জয় পরাজয় আল্লাহর হাতে। কেউ আমার প্রতিপক্ষ নই। আমি সকলের দোয়া ও সমর্থন প্রত্যাশী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here